সোমবার, ১৮ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
আজ সোমবার | ১৮ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

বোয়ালখালীতে বিএনপি থেকে পদত্যাগ করলেন পৌরমেয়র আবুল কালাম আবু

শুক্রবার, ০১ জানুয়ারি ২০২১ | ৪:০৭ পূর্বাহ্ণ | 56Views

বোয়ালখালীতে বিএনপি থেকে পদত্যাগ করলেন পৌরমেয়র আবুল কালাম আবু

বোয়ালখালী প্রতিনিধিঃ
বোয়ালখালীতে সদ্যঘোষিত পৌরসভা বিএনপির আহবায়ক কমিটিতে বিতর্কিতদের স্থান নিয়ে ক্ষোভ বিরাজ করছে নেতাকর্মীদের মাঝে। এরমধ্যে দল থেকে পদত্যাগ করেছেন পৌরমেয়র হাজি আবুল কালাম আবু

তিনি বৃহস্পতিবার (৩১ ডিসেম্বর) সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম (ফেইসবুকে) স্টাটাস দিয়ে আহবায়ক কমিটির আহবায়ক থেকে পদত্যাগ করেন।
দক্ষিণ জেলা বিএনপি’র আহবায়ক আবু সুফিয়ান ও সদস্য সচিব মোস্তাক আহমেদ খাঁনের স্বাক্ষরিত ৩১ সদস্য বিশিষ্টি আহবায়ক কমিটির অনুমোদন দেন।

দলীয় সূত্রে জানা যায়,চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা বিএনপি’র আওতাধীন ৫ উপজেলা ও ৪ পৌরসভা আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়। গত ২০১৯ অক্টোবর মাসে দক্ষিণ জেলা বিএনপির পুরাতন কমিটি ভেঙ্গে আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা পর সংগঠনকে শক্তিশালী করতে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার আওতাধীন উপজেলা ও পৌরসভা কমিটিগুলো বিলুপ্ত করে নতুন কমিটি গঠন করার উদ্যোগ নিলে মহামারী করোনা ভাইরাস ও চট্টগ্রাম- ৮ আসনের উপ-নির্বাচনের কারণে কমিটি ঘোষণা করতে বিলম্ব হয়।
গঠিত উপজেলা/পৌরসভা কমিটিগুলোতে বোয়ালখালী উপজেলায় হাজী মোহাম্মদ ইসহাক চৌধুরীকে আহবায়ক, হামিদুল হক মান্নান চেযয়ারম্যানকে সদস্য সচিব এবং বোয়ালখালী পৌর সভার মেয়র হাজী মোঃ আবুল কালাম আবু কে আহবায়ক ও মোহাম্মদ ইউসুফ চৌধুরীকে সদস্য সচিব করে আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করেন।

কমিটি নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করে মেয়র আবুল কালাম আবু বলেন, বিএনপি’র শুরু থেকে যারা মাঠের রাজনীতিতে তৃণমূল পর্যায়ে দলকে সংগঠিত করতে নিবেদিত ভাবে কাজ করেছেন। সদ্য ঘোষিত আহবায়ক কমিটিতে তাদের অবমূল্যায়ন করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ‘আমি মনে করি এই মুহূর্তে দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির আন্দোলন ছাড়া আর কিছু হতে পারে না। এ অবস্থায় দল পুনর্গঠন হতেই পারে। কিন্তু পুনর্গঠনের নামে ত্যাগীদের অবমূল্যায়ন করে একটি অপশক্তির হাতে পরাজিত হওয়ার শামিল। এ অবস্থার প্রতিকার জানাতেই পদত্যাগ করেছি।’

যারা আন্দোলন সংগ্রামে কোনদিন মাঠে নামেনি তাদেরকেই কমিটিতে রাখা হচ্ছে। সে কারণেই আজ বোয়ালখালী উপজেলা সহ প্রতিটা ইউনিয়ন বিএনপির কমিটির নাস্তানাজুক অবস্থা হয়ে দাড়িয়েছে।দলীয় কর্মকাণ্ড থেকে ও দলীয় পদ থেকে আমি পদত্যাগ করছি। আমার কর্মের মূল্যায়ন করবে পৌরসভাবাসী। তারাই আমার দল ও প্রতীক আমি নেতা হিসেবে নয় কর্মী হিসেবে দলে থাকতে চাই।

পদত্যাগের বিষয়ে চট্টগ্রাম দক্ষিনজেলা বিএনপির আহবায়ক আবু সুফিয়ান বলেন, মেয়র আবুকে যোগ্য মনে করে দলের আহবায়ক পদে মনোনীত করা হয়েছে। তবে পদত্যাগ পত্র এখনো জমা দেয়নি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে অবগত হয়েছি। আমরা মেয়রকে পদত্যাগ না করার জন্য অনুরোধ করব।

প্রসঙ্গত ২০১২ সালের ৪ অক্টোবর বোয়ালখালীকে পৌরসভা ঘোষণা করা হয়। ২০১৪ সাল বোয়ালখালী পৌরসভার নির্বাচনে মেয়র পদে হাজী আবুল কালাম আবু পেয়েছেন ১৩ হাজার ২৬৮ ভোট পেয়ে প্রথম পৌরমেয়র হিসেবে নির্বাচিত হয়।


সর্বশেষ  
জনপ্রিয়  

পেইজবুকে আমরা