সোমবার, ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৫ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
আজ সোমবার | ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

চকরিয়ায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে মাইক্রোবাস পুকুরে পড়ে পথচারীসহ নিহত- ৭

রবিবার, ১৫ আগস্ট ২০২১ | ৮:১৯ অপরাহ্ণ | 85Views

চকরিয়ায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে মাইক্রোবাস পুকুরে পড়ে পথচারীসহ নিহত- ৭

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

কক্সবাজার চকরিয়ায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একটি মাইক্রোবাস পুকুরে পড়ে নারী ও শিশুসহ ৭জনের মৃত্যু হয়েছে। তাদের মধ্যে তিনজন একই পরিবারের সদস্য। আহত হয়েছেন আরও তিনজন।

রবিবার (১৫ আগষ্ট) সকাল ১০টার দিকে কক্সবাজার-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চকরিয়া উপজেলা
ফাঁসিয়াখালীস্থ ভেন্ডিবাজার পুকপুকুরিয়া গ্রীন ভ্যালি কমিউনিটি সেন্টার সংলগ্ন এলাকায় এ মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন, চকরিয়া উপজেলার ফাঁসিয়াখালী ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের ইসমাইলের স্ত্রী হাজেরা বেগম (৬০), উপজেলার ডুলহাজারা ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের রাম মাষ্টারের ছেলে রতন বিজয় চৌধুরী (৫০), রতন বিজয়ের স্ত্রী মধুমিতা চৌধুরী (৩৫) চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলা সাধনপুর এলাকার প্রদীপ রুদ্রের স্ত্রী পূর্ণিমা রুদ্র (৩০), প্রদীপ রুদ্রের ছেলে স্বার্থক রুদ্র (৩) ও প্রদীপ রুদ্রের মা রানী রুদ্র (৬০)। তবে নিহত এক নারীর পরিচয় নিশ্চিত করতে পারেনি পুলিশ।

আহতরা হলেন, চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলার সাধনপুরের প্রদীপ রুদ্র (৩৫), তার মেয়ে শ্যামলী রুদ্র (৭) ও মনিক গঞ্জ জেলার বাবর আলী (১৮)। তার বর্তমানে চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, এই দিন সকাল বেলায় কক্সবাজার বাসটার্মিনাল থেকে যাত্রীবাহি একটি নোহা গাড়ি (নং চট্র-মেট্রো ছ-১১-২৬৯০) চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসে। সকাল ১০টার দিকে ভেন্ডিবাজার সংলগ্ন গ্রিন ভ্যালি কমিউনিটি সেন্টার এলাকায় এসে পৌঁছলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একটি বিদ্যুতের খুঁটিতে ধাক্কা দেয়। ধাক্কা খেয়ে মাইক্রোবাসটি এক বৃদ্ধ মহিলাকে চাপা দিয়ে পাশের পুকুরে পড়ে যায়। পথচারীসহ পুকুরে পড়ে সাতজন ঘটনাস্থলে মারা যায়। গুরুতর আহত হয়েছেন তিন জন। পুকুরের পানিতে ডুবে নিঃশ্বাস বন্ধ হয়ে তাদের মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রত্যক্ষদর্শীরা। ওই ঘটনার পরে চালক পালিয়ে যান।

নিহতদের মধ্যে চারজন নারী, একজন পুরুষ ও এক শিশু রয়েছে। সেখানে একই পরিবারের রয়েছে তিনজন ও আরেকটি পরিবারের স্বামী-স্ত্রী দুইজন। এই ঘটনায় আরো তিনজন আহত হয়েছে।

চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাঃ শাহ ফাহিম আহমাদ ফয়সাল নিহত বিষয়টি সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জন নিহত হয়েছেন আহত তিনজন তার মধ্যে এক জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। অন্যদেরকে প্রাথমিক চিকিৎসা ও ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে।

মালুমঘাট হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) সিরাজুল ইসলাম বলেন, কক্সবাজার থেকে চট্টগ্রাম অভিমুখি যাত্রীবাহি মাইক্রোবাস চকরিয়া উপজেলা ফাঁসিয়াখালী পুকপুকুরিয়া এলাকায় পৌছলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কের পাশে পুকুরে পড়ে যায়। চকরিয়া ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরিরা দলকে খবর দিলে ডুবুরী দল ঘটনাস্থলে এসে পানি থেকে লাশ গুলো উদ্ধার করে চকরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। এসময় নারী ও শিশুসহ সাতজন নিহত হয়। ৬জনের মরদেহ তাঁদের স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়। একজন লাশের এখনো কোন স্বজন পাওয়া যায়নি। দুর্ঘটনা কবলিত গাড়িটি জব্দ করা হয়েছে। ওই গাড়ীর চালক পলাতক রয়েছে। এ ঘটনায় দুর্ঘটনা আইনে মামলার প্রক্রিয়া চলছে বলে তিনি জানান।

চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি শাকের মোহাম্মদ জুবায়ের বলেন, সকালের দিকে একটি নোহা গাড়ি কক্সবাজার থেকে ৯ জন যাত্রী নিয়ে একটি চট্টগ্রাম যাচ্ছিল। উপজেলার ফাঁসিয়াখালী ভেন্ডিবাজার এলাকায় পৌছালে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নোহা গাড়িটি উল্টে পুকুরে পড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই চার মহিলা ও শিশু সহ ৭জন যাত্রী নিহত হয়। অজ্ঞাত এক মহিলার পরিচয়ের পাওয়া যায় নাই। লাশটি হাইওয়ে পুলিশের কাছে রয়েছে। বাকি মরদেহগুলো পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে বলে জানান।

-Advertisement-
Recent  
Popular  

Our Facebook Page

-Advertisement-
-Advertisement-